26/06/2019 , ঢাকা

দ্বিতীয়বারের মতো ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, মন্ত্রিসভায় কারা আছেন?


প্রকাশিত: 26/06/2019 08:27:16| আপডেট:

ভারতের সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) নেতৃত্বাধীন জোট এনডিএ বিজয়ী হওয়ার পর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় দ্বিতীয়বার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় দিল্লিতে রাষ্ট্রপতি ভবনের রাইসিনা হিলে শপথ নেন মোদি। শপথবাক্য পাঠ করান ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ।

মোদি শপথ নেওয়ার পর একে একে শপথ নিতে থাকেন রাজনাথ সিং, অমিত শাহ, নীতিন গড়করি, সদানন্দ গৌড়া, নির্মলা সীতারমন, নরেন সিং তোমার, রামবিলাস পাসোয়ান প্রমুখ।

নতুন এই মন্ত্রিসভার সব সদস্যরা হলেন, অমিত শাহ (প্রথমবার), রবি শংকর প্রসাদ, পীযূষ গয়াল, স্মৃতি ইরানি, নির্মলা সীতারমন, কিরণ রিজিজু, রাজনাথ সিং, নিতিন গাড়কারি, ধর্মেন্দ্র প্রধান, ড. হর্ষবর্ধন, এস জয়শঙ্কর, কৃষান পাল গুরজার, শ্রীপদ নায়েক, নরেন্দ্র সিং তমার, সুরেশ প্রভু, রাও ইন্দ্রজিৎ সিং, ভিকে সিং, অর্জুন রাম মেঘাওয়াল, হারসিমরাত কাউর রিতা, ডিভি সদানন্দ গৌড়া, বাবুল সুপ্রিয়, প্রকাশ জাভেদকার, রামদাস আথাভালে, জিতেন্দ্র সিং, নিরঞ্জন জ্যোতি, পুরুষোত্তম রুপালা, থাওয়ার চন্দ গেহলত, রতন লাল কাটারিয়া (প্রথমবার), রমেশ পখরিয়াল নিশঙ্ক (প্রথমবার), আরসিপি সিং (প্রথমবার), জি কিষাণ রেড্ডি (প্রথমবার), সুরেশ আংগাড়ি (প্রথমবার), এ রবীন্দ্রনাথ, কৈলাশ চৌধুরী (প্রথমবার), প্রহ্লাদ জোশি (প্রথমবার), সোম প্রকাশ (প্রথমবার), রমেশ্বর তেলি (প্রথমবার), সুব্রত পাঠক (প্রথমবার), দেবশ্রী চৌধুরী (প্রথমবার) ও রিতা বহুগুনা জোশি (প্রথমবার)।

শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে বিমস্টেক দেশের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। এ ছাড়া বিদেশি অতিথিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ, কিরঘিজস্তানের প্রেসিডেন্ট সোরোনবে জিনবেকভ, মরিশাসের প্রধানমন্ত্রী প্রভিন্দ জুগনউথ, ভুটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিং, মিয়ানমারের প্রেসিডেন্ট উইন মিন্ট, শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনা। মোদির শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন অভিনেতা রজনীকান্ত।, বিজেপির বর্ষীয়ান নেতা লালকৃষ্ণ আদভানি, কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী, ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং, ইউপিএ চেয়ারপার্সন সোনিয়া গান্ধী, দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালসহ আরো অনেকে।

বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রপ্রধান, শিল্পপতি ও বিশিষ্টজন মিলিয়ে শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত হন আট হাজার অতিথি। বৃহস্পতিবার বিকেলেই অতিথিদের সবাই পৌঁছে যান রাষ্ট্রপতি ভবনে। মোদির শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ৫২টি শহীদ পরিবারের মোট ৭০ জন সদস্য।


  
এ সম্পর্কিত আরও খবর...

ঝিনাইদহে স্ত্রীর সাথে যৌন মিলনের ছবি ফেসবুকে দিলেন পুলিশ সদস্য

বিষয়টি নিয়ে ঝিনাইদহ পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামান বলেন, আমি শুনেছি শোভন কর্মস্থলে গরহাজির থাকে। তদন্ত করে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

ঝিনাইদহে মাদক মামলায় ব্যবসায়ীর যাবজ্জীবন

মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা তদন্ত শেষে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। বিচারক দীর্ঘ শুনানি শেষে আসামি আনিছুর রহমানকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড

ঝিনাইদহে সাবেক স্বামীর ছুরিকাঘাতে নারী জখম

আয়াতুল্লাহ বেহেস্তী তার সহকর্মী জান্নাতুল নাহারের সাথে অফিসে দেখা করতে আসে। এক পর্যায়ে তারা অফিসের বাইরে বারান্দায় গেলে জান্নাতুলকে ধারালো কিছু দিয়ে মুখে, পিঠে আঘাত করে।

মন্তব্য লিখুন...

Top