14/12/2018 , ঢাকা

‘মাশরাফি ভাইয়ের নৌকা’


প্রকাশিত: 14/12/2018 11:25:13| আপডেট:

বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজাকে আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নড়াইল-২ আসনে দলীয় মনোনয়ন চূড়ান্ত করায় মাশরাফিকে স্বাগত জানিয়ে হাজারো সমর্থক আনন্দ মিছিল করেছেন।

বুধবার (১৪ নভেম্বর) সন্ধ্যা ৬টায় রূপগঞ্জ এলাকা থেকে আনন্দ মিছিলটি বের হয়। জেলা আওয়ামী লীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, ছাত্রলীগ, যুবলীগসহ এলাকার সর্বস্তরের মানুষের অংশগ্রহণে মিছিলটি শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে নড়াইল চৌরাস্তায় এসে শেষ হয়।

মিছিল শেষে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক ও নড়াইল পৌরসভার মেয়র মো. জাহাঙ্গীর বিশ্বাসের সভাপতিত্বে অধিনায়ককে স্বাগত জানিয়ে এবং নৌকার পক্ষে জোরালোভাবে কাজ করার অনুরোধ জানিয়ে বক্তব্য দেন জেলা আওয়ামী লীগের শ্রম বিষয়ক সম্পাদক বাস-মিনিবাস মালিক সমিতির সভাপতি কাজী জহিরুল হক, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক এসএম পলাশ, নড়াইল সদর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মো. মাহফুজুর রহমান, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সিনিয়র সদস্য সাবেক লক্ষ্মীপাশা ইউপি চেয়ারম্যান কাজী বশিরুল হক, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা মাহমুদুল হাসান কয়েস, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নিলয় রায় বাধনসহ অনেকে।

এ সময় বক্তারা বলেন, মাশরাফি বিন মুর্তজা নড়াইল-২ (নড়াইল সদর-লোহাগড়া) আসন আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন দেয়ায় আমরা আনন্দিত। আমাদের বিশ্বাস মাশরাফি নির্বাচন করলে তিনি বিপুল ভোটের ব্যবধানে নির্বাচিত হবেন।

জানা গেছে, বিগত সময়ে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নড়াইলের এ আসন থেকে আওয়ামী লীগ বরাবরই ভালো ফলাফল করেছে। ১৯৭৩, ৯১, ৯৬, ২০০৮ এবং ২০১৪ সালের সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীক জয়লাভ করে।

তবে ২০১৪ সালে আওয়ামী লীগের নৌকা নিয়ে জয়লাভ করেন ওয়ার্কাস পার্টি নেতা বর্তমান এমপি শেখ হাফিজুর রহমান। আসনটিতে ১৯৮৬ ও ৮৮ সালে জাতীয় পার্টি এবং ১৯৭৯ এবং ২০০১ সালে উপ-নির্বাচনে বিএনপি জয়লাভ করে।

** নির্ভরযোগ্য খবর জানতে ও পেতে স্টার মেইলের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে রাখুন: Star Mail/Facebook


  
এ সম্পর্কিত আরও খবর...

প্রেস থেকে ঝিনাইদহের বিএনপি প্রার্থীর পোস্টার ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগ

বিএনপি দলীয় প্রার্থীর হাজার হাজার পোস্টার-লিফলেট জোর করে তুলে মিনি ট্রাকসহ নিয়ে যায়।

চলুন, এই বাবাকে খুঁজে বের করি

সকাল ৯টার দিকে বাসা থেকে বের হয়ে যাওয়ার পর এখনও পর্যন্ত তিনি বাসায় ফেরেননি। বাসা থেকে

জঙ্গলে ধ্যান করে গিয়ে চিতার পেটে বৌদ্ধ ভিক্ষু

জঙ্গলের ভেতরে একটি মন্দিরে থাকেন। কিন্তু বুধবার সকালে তিনি ওই মন্দির থেকে বেশ কিছুটা দূরে ধ্যান করতে যান।

মন্তব্য লিখুন...

Top