1. admin@starmail24.com : admin :
  2. editor@starmail24.com : editor@starmail24.com :
শিরোনাম :
প্রথম প্রহরে ভাষা শহীদদের প্রতি রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা লড়াই চালিয়ে যাওয়ার অঙ্গীকার ইমরান খানের দল পিটিআই মিয়ানমার থেকে সশস্ত্র অবস্থায় কারও বাংলাদেশে ঢোকার সুযোগ নেই : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মালয়েশিয়ায় নির্মাণাধীন ১৩ তলা ভবন থেকে পড়ে এক বাংলাদেশির মৃত্যু বিপিএলে উড়ছে রংপুর রাইডার্স জোট গঠন করে সরকারে আসবে ইমরানের পিটিআই অবৈধ মোবাইল ফোন আগামী জুলাই মাসে বন্ধ হতে পারে জানালেন প্রতিমন্ত্রী জাতীয় পার্টি থেকে জিএম কাদের-চুন্নুকে বহিষ্কার করলেন রওশন এরশাদ সৌদি আরবে এক সপ্তাহে ১৫ হাজারের বেশি অভিবাসী গ্রেপ্তার ৩০ জানুয়ারি সারা দেশে কালো পতাকা মিছিল কর্মসূচি বিএনপির




মালয়েশিয়ায় বিদেশি কর্মীদের করোনা ভাইরাস টেস্ট বাধ্যতামূলক

স্টার মেইল ডেস্ক:
  • সর্বশেষ আপডেট : শনিবার, ২৬ ডিসেম্বর, ২০২০

মালয়েশিয়া সরকার বিদেশি কর্মীদের করোনা ভাইরাস টেস্ট বাধ্যতামূলক করেছে। এ বিষয়ে কড়া নির্দেশনা জারি করেছে দেশটির সরকার। আগামী ১ জানুয়ারি থেকে যেসব নিয়োগকর্তা তাদের বিদেশি কর্মীদের কোভিড-১৯ পরীক্ষার জন্য পাঠাতে ব্যর্থ হবেন, তাদের প্রিভেনশন অ্যান্ড কন্ট্রোল অফ ইনফেকশাস ডিজিজ অ্যাক্ট ১৯৮৮ এর অধীনে শা’স্তি দেওয়া হবে। শুক্রবার (২৫ ডিসেম্বর) স্থানীয় সময় দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী দাতুক সেরি ইসমাইল সাবরি বিন ইয়াকুব কোভিড-১৯-এর নিয়মিত ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানিয়েছেন।

দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলেন, বিদেশি কর্মীদের করোনা পরীক্ষায় অনেক নিয়োগকর্তা সহযোগিতা করছেন না বলে রিপোর্ট দিয়েছে দেশটির মানব সম্পদ মন্ত্রণালয়। এ ধরণের নিয়োগ কর্তাদের বি’রু’দ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে, যেটা জাতীয় নি’রাপ’ত্তা কাউন্সিলের মিটিংয়ে সিদ্ধান্ত হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, নিয়োগকর্তাদের অবশ্যই পরীক্ষার জন্য বেসরকারি স্বাস্থ্য সুবিধাসহ স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় নির্ধারিত অপারেটিং পদ্ধতি (এসওপি) মেনে চলতে হবে, ক্লিনিক এবং হাসপাতালে পরিষেবার ব্যয় অবশ্যই নিয়োগকর্তাদের বহন করতে হবে।

এছাড়া দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সূত্রে জানা যায়, এখন পর্যন্ত ১ হাজার ৯৯০ জন নিয়োগকর্তা তাদের ৪৯ হাজার ২৪৮ জন বিদেশি কর্মীকে করোনাভাইরাস টেস্ট করিয়েছে। তবে, এখনও অনেক নিয়োগকর্তা রয়েছেন যারা এই আদেশ মেনে চলতে ব্যর্থ হয়েছেন।

এদিকে দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ২৪৭ জন। সব মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ১ হাজার ৫৬৫ জন। এ পর্যন্ত করোনায় মা’রা গেছেন ৪৪৯ জন। সুস্থ হয়ে বাসায় ফিরেছেন ৮২ হাজার ৫৪০ জন। তবে দেশটিতে এখন পর্যন্ত কোনো বাংলাদেশি মা’রা যাওয়ার খবর পাওয়া যায়নি।




আরো পড়ুন