1. admin@starmail24.com : admin :
  2. editor@starmail24.com : editor@starmail24.com :
ব্রান্ডিং বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয় নিয়ে মালয়েশিয়ায় বিএসইউএমের নতুন কমিটির দায়িত্ব গ্রহন | starmail24
শিরোনাম :
শেখ হাসিনার নামে পদ্মা সেতুর নামকরণের প্রস্তাবে: প্রধানমন্ত্রীর না ভারতে করোনা টিকা উৎপাদান কোম্পানি সেরাম ইনস্টিটিউটে অগ্নিকাণ্ডে ৫ জনের মৃত্যু ফেব্রুয়ারিতে সীমিত পরিসরে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার বিষয়ে নীতিগত সিদ্ধান্ত দীর্ঘস্থায়ী কোভিড সংক্রমণে তরুণদের চার মাস পরও অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ ক্ষতিগ্রস্তের আশঙ্কা: গবেষণা করোনায় প্রতি ৩০ সেকেন্ডে একজন হাসপাতালে ভর্তি হচ্ছেন ইংল্যান্ডে মহামারির মধ্যেও অত্যধিক রেমিট্যান্সপ্রবাহ নিয়ে সংশয় : ড. দেবপ্রিয় নরওয়েতে ফাইজার প্রথম ডোজের টিকা নেয়ার পর ২৩ জনের মৃত্যু দেশে করোনায় বাড়লো মৃত্যু, কমলো আক্রান্ত দেশের চারটি পৌরসভায় ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন বিএনপি ও স্বতন্ত্র প্রার্থীর মালয়েশিয়ায় ১৩ জানুয়ারি থেকে সরকারের কড়া বিধিনিষেধের মাঝেও দূতাবাসের পাসপোর্ট বিতরন




ব্রান্ডিং বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয় নিয়ে মালয়েশিয়ায় বিএসইউএমের নতুন কমিটির দায়িত্ব গ্রহন

মোহাম্মদ আলী, মালয়েশিয়া প্রতিনিধিঃ
  • সর্বশেষ আপডেট : রবিবার, ৩ জানুয়ারী, ২০২১

ব্রান্ডিং বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয় নিয়ে দায়িত্ব গ্রহন করলেন বিএসইউএমের নবনির্বাচিত কমিটির নেতৃবৃন্দ। এ উপলক্ষে ৩ জানুয়ারি রবিবার মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালামাপুরে বিএসইউএম কর্তৃক অনুষ্ঠিত হলো, নতুন কার্যনির্বাহী কমিটিকে বরন এবং সাবেক কমিটিকে বিদায় অনুষ্টান।

এর আগে গত ৩১ ডিসেম্বর জুম কনফারেন্সের মাধ্যমে বিএসইউএম ২০২১ এর কাউন্সিল অনুষ্ঠিত এবং ২ জানুয়ারি পূর্ণাঙ্গ কমিটির তালিকা প্রকাশ করা হয়।

বাংলাদেশী স্টুডেন্টস ইউনিয়ন মালয়েশিয়া (বিএসইউএম)”র নবনির্বাচিত সভাপতি মোহাম্মদ বোরহান উদ্দীনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন,বিএসইউএমের সাবেক সভাপতি এবং বর্তমান উপদেষ্টা, আইআইইউএম পোস্ট ডক্টোরাল ফেলো ডঃ ফয়জুল হক, বাংলাদেশ প্রেসক্লাব অব মালয়েশিয়ার সিনিয়র সহ-সভাপতি আহমাদুল কবির, সাংবাদিক মোহাম্মদ আলী, সাংবাদিক মো: মনিরুজ্জামান।

নতুন কমিটির সভাপতিকে ক্রেস্ট দিয়ে বরন করেনেন বাংলাদেশ প্রেসক্লাব অব মালয়েশিয়ার সিনিয়র সহ-সভাপতি আহমাদুল কবির

এ ছাড়া অনুষ্টানে উপস্থিত ছিলেন,সদ্য বিদায়ী ২০২০ কমিটির সভাপতি জহিরুল ইসলাম, নবনির্বাচিত কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি আলমগীর চৌধুরী আকাশ সাধারণ সম্পাদক মির্জা মোস্তাফিজুর রহমান, ,সহ-সভাপতি শরীফ হোসেন, সহ-সভাপতি জোহরুল ইসলাম, যুগ্ম সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, যুগ্ম সম্পাদক হামিদুল ইসলাম, আইটি সম্পাদক আব্দুর রহমান রাতুল সহ কমিটির অধিকাংশ সদস্যবৃন্দ।

অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, পোস্ট গ্রাজুয়েট স্টুডেন্টস সোসাইটি অব আইআইইউএমের নির্বাচিত সহ-সভাপতি আব্দুল মতিন, অর্থ সম্পাদক মোঃ মহিবুল ইসলাম এবং মালয়েশিয়ায় অবস্থানরত বিশিষ্ট বাংলাদেশী ব্যবসায়ী ও বিভিন্ন সেক্টরের চাকুরীজীবি সহ অনেকেই।

অনুষ্ঠানে বিদায়ী সভাপতি জহিরুল ইসলামকে ক্রেস্ট এবং ফুলের মালা দিয়ে সম্মাননা জানান বিএসইউএমের সাবেক সভাপতি ও বর্তমান উপদেষ্টা ডঃ ফয়জুল হক। নতুন কমিটির সভাপতিকে ফুলের মালা এবং ক্রেস্ট দিয়ে বরন করে নেন প্রেসক্লাবের সিনিয়র সহ-সভাপতি আহমাদুল কবির এবং উপদেষ্টা ডঃ ফয়জুল হক। এছাড়াও ফুলের মালা দিয়ে বরন করে নেয়া হয় সিনিয়র সহ-সভাপতি আলমগীর চৌধুরী আকাশ, সাধারন সম্পাদক মির্জা মোস্তাফিজুর রহমান, সহ-সভাপতি শরীফ হোসেন, সহ-সভাপতি জোহরুল ইসলাম এবং অন্যান্য নেতৃবৃন্দকে।

পুরো অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন নবনির্বাচিত কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি আলমগীর চৌধুরী আকাশ এবং সাধারণ সম্পাদক মির্জা মোস্তাফিজুর রহমান।

বিএসইউএমের সাবেক সভাপতি এবং বর্তমান উপদেষ্টা ডঃ ফয়জুল হক বলেন, বিএসইউএম একটি সম্পূর্ণ অরাজনৈতিক এবং দল মত নির্বিশেষে সবাইকে নিয়ে চলার মত নির্ভরযোগ্য সংগঠন হচ্ছে বিএসইউএম। নবনির্বাচিত কমিটির উদ্দেশ্য তিনি বলেন যে, নতুন নেতৃত্ব সবসময়ই নতুনত্বের মাধ্যমে সংগঠনের কল্যান নিয়ে আসে। আমার বিশ্বাস, নবকমিটি দল মত জাতি ধর্ম নির্বিশেষে শুধুমাত্র বৈধ ভিসা সম্পন্ন সকল মতের ছাত্রদের সাথে নিয়ে বিএস ইউএম এর সফলতার ধারা অব্যাহত রাখবে। গতিশীল ও সুনিয়মতান্ত্রিক এ সংগঠনে অছাত্র বা ছাত্রজীবন সম্পন্ন মানুষদের কোন জায়গা নেই।

প্রেসক্লাবের সিনিয়র সহসভাপতি আহমাদুল কবির বাংলাদেশ স্টুডেন্টস ইউনিয়ন মালয়েশিয়ার বিভিন্ন কর্মকান্ডের প্রশংসা করে বলেন, মালয়েশিয়ার বুকে বিএসইউএম যেভাবে ছাত্রদের কল্যানে কাজ করে যাচ্ছে তা সত্যিই প্রশংসার দাবি রাখে এবং বিএসইউএমের নবনির্বাচিত কমিটিকে ব্রান্ডিং বাংলাদেশের জন্য কাজ করার উদাত্ত আহ্বান জানান। দেশের এবং ছাত্র-ছাত্রীদের কল্যাণে যে কোন প্রয়োজনে প্রেসক্লাব তাদের পাশে আছে বলে জানান।

সদ্য বিদায়ী সভাপতি জহিরুল ইসলাম তার বক্তব্যে বলেন, গত ৩১ই ডিসেম্বর ২০২০ জুমের মাধ্যমে বিএসইউএমের ২০২১ কাউন্সিল অনুষ্ঠিত হয় এবং গতকাল ২রা জানুয়ারী বি এস ইউ এম এর নতুন কমিটির পূর্ণাঙ্গ তালিকা প্রকাশ করা হয় এবং এরই মাধ্যমে আমার দীর্ঘদিন এর সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব আপনাদের দোয়া,ভালবাসা ও সহযোগিতায় সম্পন্ন করেছি। চেষ্টা করেছি এই সংগঠনকে সর্বদলীয় ও শুধুমাত্র ছাত্রদের সংগঠন হিসেবে দেশীয় ঐতিহ্য ও ভাবমূর্তিমূলক ছাত্রসমাজের কল্যানের মাধ্যমে সকল ছাত্র-ছাত্রীদের আস্থা ও ভালবাসা অর্জন করতে এবং সংগঠনের সুপরিচিতি বিস্তার করতে। আজ বি এস ইউ এম হাঁটি হাঁটি পা করে মালয়েশিয়ায় ছাত্রদের নির্ভরতা ও আস্থার সংগঠন। সংগঠনের এ সফলতায় আমি আনন্দিত ও আবেগাপ্লুত। কৃতজ্ঞ সকলের কাছে যাদের অক্লান্ত পরিশ্রম, সার্বক্ষনিক সহায়তা, অমূল্য সময়, বিএসইউ এম এর প্রতি নিঃশর্ত ভালবাসা ছাড়া আমার একার পক্ষে এই সংগঠনের সফলতা আনা সম্ভব হত না। সংগঠনের একজন উপদেষ্টা হিসেবে আপনাদের পাশে ও সংগঠনের কল্যানে সবসময়ই থাকব।

নতুন কমিটির নেতৃবৃন্দকে ফুলের মালা দিয়ে বরন করেনেন

নবনির্বাচিত কমিটির সভাপতি মোহাম্মদ বোরহান উদ্দীন বলেন, আমার এই শেষনে মালয়েশিয়ায় অবস্থানরত বাংলাদেশী সমস্ত শিক্ষার্থীর কল্যানে শিক্ষা সহায়ক সমস্ত কাজ করবো। বিশেষ করে তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে সারাবছরই কাজ করে যাবো। বিএসইউএমের সদস্যদের দেশ ও জাতির প্রতি অনেক দায়বদ্ধতা রয়েছে। তিনি বিদেশে অধ্যয়নরত ছাত্রছাত্রীদের উচ্চশিক্ষার মাধ্যমে নিজেদের দক্ষ হিসেবে গড়ে তুলে দেশের স্বার্থে কাজ করার আহ্বান জানান। নতুন কমিটির সফলতার জন্য সকলের নিকট দোয়া কামনা করেন।

এছাড়াও বিভিন্ন আলোচক তাদের আলোচনায় ফুটিয়ে তোলেন বাংলাদেশের ইতিহাস, সংস্কৃতি স্বাধীনতা এবং সার্ভভৌমত্বের কথা। মালয়েশিয়ায় অধ্যয়নরত বাংলাদেশিদের একই ছাতার নিচে এনে মালয়েশিয়ার বুকে দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করায় ভূমিকা রাখার জন্য বিএসইউএমকে ধন্যবাদ জানানোর পাশাপাশি নিজেদের দক্ষতা উন্নয়ন করে দেশের উন্নয়নে আরো বেশি ভূমিকা রাখার আহ্বান জানান।

উল্লেখ্য,২০১৪ সালে প্রতিষ্ঠিত বাংলাদেশী স্টুডেন্টস ইউনিয়ন মালয়েশিয়া (বিএসইউএম) মালয়েশিয়ায় অধ্যয়নরত প্রায় ২০ হাজার ছাত্রছাত্রীদের সর্ববৃহৎ অরাজনৈতিক সংগঠন। বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের দল, মত, ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে একতাবদ্ধ করার পাশাপাশি শিক্ষা ও অন্যান্য কাজে দক্ষ হিসেবে গড়ে তুলতে সংগঠনটি বিভিন্ন সেমিনার, ক্যারিয়ার ক্যাম্প, ক্রীড়া প্রতিযোগিতা, সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতাসহ বিভিন্ন ধরনের কর্মসূচির আয়োজন করে আসছে।এসব কর্মসূচিতে বিশ্বখ্যাত দেশি-বিদেশি স্কলার, গবেষক, ইয়ুথ লিডারসহ বিভিন্ন দেশের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিত্ব অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকেন। মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশের উন্নয়ন-আগ্রগতি ও বিভিন্ন বিভাগে বাংলাদেশিদের অবদান তুলে ধরতেও বিএসইউএম কাজ করে যাচ্ছে ।




আরো পড়ুন