1. admin@starmail24.com : admin :
  2. editor@starmail24.com : editor@starmail24.com :
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ফিলিস্তিনকে বললেন হামলা থামাতে, ইসরায়েলকে দিলেন সমর্থন - starmail24
শিরোনাম :
মাদক নিয়ন্ত্রণ করা না গেলে এসডিজি বাস্তবায়ন সম্ভব হবে না ‘অল্প স্বল্প গল্প’ নিয়ে ফিরলেন আরজে রিজন মালয়েশিয়ায় এপ্রিলের শেষ সাপ্তাহ থেকে প্রায় ১ লাখ ৮০ হাজার বিদেশি কর্মী প্রবেশ করতে পারে ! ইফতার আয়োজনে ‘সম্প্রীতি ও সৌহার্দ্য’ মালয়েশিয়া আওয়ামীলীগের ৮ বছরের অন্তঃদ্বন্ধের সমাধান গ্রামীণ টেলিকম শ্রমিক কর্মচারীদের অসন্তোষ, নোবেল বিজয়ী ডক্টর মোহাম্মদ ইউনুসের নিরাবতা দেশ গড়ার বাস্তবায়নে জনগণের পাশে থেকে কাজ করুন, প্রশাসন ক্যাডারদের প্রধানমন্ত্রী পাকিস্তানের আইনসভা ভেঙে দিলেন প্রেসিডেন্ট, ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন মুখ দেখানোতে আপত্তি, ছবির বদলে বায়োমেট্রিকের নিয়ম দাবি জীবন বীমার সাবেক এমডি জহুরুল হকের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা




মার্কিন প্রেসিডেন্ট ফিলিস্তিনকে বললেন হামলা থামাতে, ইসরায়েলকে দিলেন সমর্থন

স্টার মেইল ডেস্ক:
  • সর্বশেষ আপডেট : রবিবার, ১৬ মে, ২০২১

ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসকে ফোন করে ইসরায়েলে হামলা চালাতে নিষেধ করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। আব্বাসের আগে বাইডেন ফোন করেন ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুকে। তার দেশের প্রতি একনিষ্ঠ সমর্থন অব্যাহত থাকবে বলে জানান মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

গতকাল শনিবার ফিলিস্তিন ও ইসরায়েলের প্রধানদের সঙ্গে বাইডেন পৃথক ফোনালাপে এসব কথা বলেন বলে জানিয়েছে হোয়াইট হাউস। দুটি আলাদা টুইটে এ খবর নিশ্চিত করা হয়। এছাড়া একটি বিবৃতিও দিয়েছে হোয়াইট হাউস।

বিবৃতিতে ইসরায়েলকে সমর্থন জানিয়ে বলা হয়, প্রেসিডেন্ট বাইডেন ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রীকে বলেছেন, গাজা থেকে হামাস ও অন্যান্য সন্ত্রাসী পক্ষের রকেট হামলা ঠেকাতে ইসরায়েলের আত্মরক্ষার অধিকার রয়েছে। আর এই অধিকারের প্রতি তার (বাইডেন) একনিষ্ঠ সমর্থন অব্যাহত থাকবে। তবে তিনি দুই দেশের মধ্যে চলমান লড়াইয়ে শিশু ও বেসামরিক নাগরিকদের মৃত্যু এবং গণমাধ্যমের কার্যালয় ধ্বংসের ব্যাপারে উদ্বেগ জানিয়েছেন। হামলা থেকে সাংবাদিকদের সুরক্ষিত রাখতে নেতানিয়াহুর প্রতি আহ্বান জানান বাইডেন। অন্যদিকে ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসকে বাইডেন বলেন, ইসরায়েলকে লক্ষ্য করে গাজা থেকে হামাস যেন রকেট হামলা বন্ধ করে। এ সময় তিনি ফিলিস্তিনের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের অংশীদারত্ব জোরদারে নিজের প্রতিশ্রুতিও ব্যক্ত করেন। যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হওয়ার পর এই প্রথম আব্বাসের সঙ্গে কথা হয়েছে বাইডেনের, বলেও বিবৃতিতে বলা হয়।

দুই রাষ্ট্র নেতার সঙ্গে কথা হলেও হামাসের কোনো প্রতিনিধির সঙ্গে কথা বলেননি বাইডেন। যে কারণে ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্টের সঙ্গে তার আলাপ কোনো কাজে আসতে না বলে ধারণা করা হচ্ছে। কেননা, আব্বাসের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে অধিকৃত পশ্চিম তীর। গাজার নিয়ন্ত্রণ রয়েছে হামাস সরকারের। গাজা উপত্যকায় আব্বাসের নিয়ন্ত্রণ নেই বললেই চলে।

এদিকে সোমবার ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের মধ্যকার লড়াই নিয়ে বৈঠকে বসতে যাচ্ছে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ। ইতিমধ্যে তেল-আবিব পৌঁছেছেন যুক্তরাষ্ট্রের ফিলিস্তিন ও ইসরায়েল সম্পর্কবিষয়ক ডেপুটি অ্যাসিস্ট্যান্ট সেক্রেটারি হাদি আমর।

গত সোমবার থেকে গাজায় চালিয়ে আসা ইসরায়েলি বিমান ও গোলা হামলায় শনিবার পর্যন্ত অন্তত ১৪৫ জন নিহত হয়েছেন। নিহত ফিলিস্তিনিদের মধ্যে ৪১ শিশু রয়েছে। অন্যদিকে গাজা থেকে ছোড়া হামাসের রকেট হামলায় দুই শিশুসহ ১০ ইসরায়েলি নিহত হয়েছেন।




আরো পড়ুন