1. admin@starmail24.com : admin :
  2. editor@starmail24.com : editor@starmail24.com :
সড়কে অন্যান্য দিনের তুলনায় আজ ব্যক্তিগত গাড়ির সংখ্যা বেশি - starmail24
শিরোনাম :
মাদক নিয়ন্ত্রণ করা না গেলে এসডিজি বাস্তবায়ন সম্ভব হবে না ‘অল্প স্বল্প গল্প’ নিয়ে ফিরলেন আরজে রিজন মালয়েশিয়ায় এপ্রিলের শেষ সাপ্তাহ থেকে প্রায় ১ লাখ ৮০ হাজার বিদেশি কর্মী প্রবেশ করতে পারে ! ইফতার আয়োজনে ‘সম্প্রীতি ও সৌহার্দ্য’ মালয়েশিয়া আওয়ামীলীগের ৮ বছরের অন্তঃদ্বন্ধের সমাধান গ্রামীণ টেলিকম শ্রমিক কর্মচারীদের অসন্তোষ, নোবেল বিজয়ী ডক্টর মোহাম্মদ ইউনুসের নিরাবতা দেশ গড়ার বাস্তবায়নে জনগণের পাশে থেকে কাজ করুন, প্রশাসন ক্যাডারদের প্রধানমন্ত্রী পাকিস্তানের আইনসভা ভেঙে দিলেন প্রেসিডেন্ট, ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন মুখ দেখানোতে আপত্তি, ছবির বদলে বায়োমেট্রিকের নিয়ম দাবি জীবন বীমার সাবেক এমডি জহুরুল হকের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা




সড়কে অন্যান্য দিনের তুলনায় আজ ব্যক্তিগত গাড়ির সংখ্যা বেশি

স্টার মেইল ডেস্ক:
  • সর্বশেষ আপডেট : শনিবার, ১০ জুলাই, ২০২১

কঠোর বিধিনিষেধের দশম দিন চলছে। সড়কে অন্যান্য দিনের তুলনায় আজ ব্যক্তিগত গাড়ির সংখ্যা বেশি। চেকপোস্ট অব্যাহত থাকায় বিভিন্ন স্থানে যানবাহনের দীর্ঘ জট দেখা গেছে। তবে পুলিশি কড়া নজরদারি রয়েছে।

শনিবার রাজধানীর মিরপুর-১ নম্বর ফুট-ওভারব্রিজের নিচে দেখা গেছে, কাজের খোঁজে দিনমজুররা বসে রয়েছেন। কাজ না করলে পরিবার নিয়ে না খেয়ে থাকতে হবে বলে লকডাউনে বের হতে বাধ্য হয়েছেন বলে জানিয়েছেন কয়েকজন।

এদিকে রাস্তায় রিকশার যাত্রী কম হওয়ায় প্রত্যাশা অনুযায়ী আয় হচ্ছে না বলে জানান রিকশাচালকরা। জমার টাকা তুলতেই কষ্ট হচ্ছে। ফলে অনেক চালকই রিকশা নিয়ে বের হচ্ছেন না।সাদেক নামের একজন রিকশাচালক বলেন, লকডাউনের আগে ভালো আয় হতো। কিন্তু লকডাউনের পর থেকে সেভাবে আয় হচ্ছে না। আগে প্রতিদিন জমার টাকা দিয়েও এক হাজার টাকার বেশি আয় করতে পারতাম। কিন্তু এখন জমার টাকা ও খাওয়ার টাকা জোগাড় করতেই হিমশিম খেতে হচ্ছে। এজন্য প্রতিদিন রিকশা নিয়ে বের হই না। মাঝে মাঝে বা একদিন পর রিকশা চালাচ্ছি।

করোনা সংক্রমণ বাড়ার ফলে সারাদেশে কঠোর বিধিনিষেধ পালন করছে সরকার। ১ জুলাই থেকে এক সপ্তাহের কঠোর বিধিনিষেধে দিলেও পরবর্তীতে তা আরো এক সপ্তাহ বাড়িয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।




আরো পড়ুন